আচার ও সংস্কার

জানেন কী ‘ওঁ’ ধ্বনি দিয়ে হিন্দু মন্ত্র কেন শুরু হয় ?

জানেন কী ‘ওঁ’ ধ্বনি দিয়ে কেন শুরু হয় হিন্দু মন্ত্র?

হিন্দু ধর্মের আচার-আচরণ পালনের ক্ষেত্রে মন্ত্র একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। মন্ত্র বলতে সাধারণত বোঝায় ভক্তিমূলক ধ্বনি, শব্দ বা বাক্য। বিশ্বাস করা হয় এই ঐশ্বরিক বাচনভঙ্গীতে আধ্যাত্মিক, মনস্তাত্ত্বিক ও ঐশ্বরিক শক্তি রয়েছে। যেকোন মন্ত্র গভীরভাবে নিজের মধ্যে ধারণ করতে পারলে এর আধ্যাত্মিক ও ঐশ্বরিক মূল্য বোঝা যায়।

চিত্ত ও মনের উন্নতি সাধনই মন্ত্রের প্রধান কাজ। একটা বিষয় নিশ্চয় খেয়াল করেছেন, সনাতন হিন্দু ধর্মের সব মন্ত্রই শুরু হয় ‘ওঁ’ ধ্বনির মাধ্যমে। কিন্তু কেন ‘ওঁ’ ধ্বনির মাধ্যমে শুরু হয় হিন্দু মন্ত্র? জানতে হলে প্রবেশ করতে হবে হিন্দুশাস্ত্রের গভীরে।

আরো পড়ুনঃ জেনে নিন নিয়মিত ওম মন্ত্র পাঠে কি কি উপকার হয়

হিন্দুশাস্ত্রমতে, ওঁ ধ্বনিটি আসলে অ, উ এবং ম-এর একীভূত রূপ। এই তিনটি ধ্বনি দ্বারা মানব জীবনের ত্রিগুণ অর্থাৎ সত্ত্ব, রজঃ এবং তমঃ এই তিনটি গুণকে বোঝায়। এই তিন গুণের সম্মিলন ঘটিয়েই মনকে মন্ত্রের মধ্যে নিবেদন করতে হয়।  

অ, উ ও ম-কে হিন্দু ধর্মের প্রধান তিন দেবতা ব্রহ্মা, বিষ্ণু এবং মহেশ্বর তথা শিবের প্রতীক বলেও মনে করা হয়। তাই সনাতন ধর্মের যেকোন মন্ত্র উচ্চারণের পূর্বে এই ত্রিশক্তিকে স্মরণ করা হয়।

‘ওঁ’ ধ্বনিকে এই বিশ্ব চরাচরের আদি ধ্বনি হিসেবে মনে করা হয়। সৃষ্টির শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত এই ধ্বনি জগতে বহমান থাকবে। তাই যেকোনও মন্ত্র উচ্চারণের শুরুতে ‘ওঁ’ ধ্বনির মাধ্যমে মন্ত্রকে মহাজগতের সাথে সংযুক্ত করা হয়।

ওঁ

আরো পড়ুনঃ চাণক্য নীতি অনুসারে, কোন ব্যক্তির সঙ্গে বন্ধুত্ব করার আগে জেনে নিন এই চারটি বিষয়

মন্ত্র পাঠের সময় মনকে বিক্ষিপ্ত হতে বাধা দেয় ‘ওঁ’ ধ্বনি। সুতরাং যেকোন মন্ত্রের প্রকৃত ফল ভোগ করতে হলে, মন্ত্র শুরুর আগে ‘ওঁ’ উচ্চারণ করা অবশ্যই কর্তব্য।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
error: Content is protected !!