দেশে দেশে হিন্দুধর্ম

দক্ষিণ আমেরিকার দেশ সুরিনামে হিন্দু ধর্ম যেভাবে অন্যতম প্রধান ধর্ম হয়ে উঠেছে!

সুরিনামে হিন্দু ধর্ম

সুরিনাম! আটলান্টিক মহাসাগরের তীরে দক্ষিণ আমেরিকার উত্তর-পূর্ব অংশে অবস্থিত একটি রাষ্ট্র। ১৯৭৫ সালের আগ পর্যন্ত সুরিনাম নেদারল্যান্ড্‌সের একটি উপনিবেশ ছিল এবং তখন এর নাম ছিল ওলন্দাজ গায়ানা। সুরিনামের আয়তন ১,৬৩,৮২১ বর্গ কিমি। অর্থাৎ বাংলাদেশের চেয়ে সামান্য একটু বড় সুরিনাম

ঔপনিবেশিক প্ল্যান্টেশন ব্যবস্থার ফলশ্রুতিতে সুরিনামে বহু জাতির মানুষের বসবাস। যেসব প্ল্যান্টেশনে আখ ও অন্যান্য শস্যের চাষ হত, সেগুলি আফ্রিকা থেকে আনা দাসশ্রমের উপর নির্ভরশীল ছিল। দাসপ্রথার অবসানের পর ভারত, ইন্দোনেশিয়া ও এশিয়ার অন্যান্য অঞ্চল থেকে চুক্তিবদ্ধ শ্রমিকদের নিয়ে আসা হয়।

সুরিনাম হিন্দু
সুরিনাম হিন্দু

২০১৭ সালের জনশুমারী থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুসারে সুরিনামের মোট জনসংখ্যা ৫,৬৩,৪০২। প্রতি বর্গকিলোমিটারে জনসংখ্যা মাত্র ৩ জন, যা বিশ্বের সর্বনিম্ন জনঘনত্বের একটি। সুরিনামের জনগণ জাতিগতভাবে বিচিত্র। প্রায় ৩৭% লোক ভারতীয় বংশোদ্ভুত এবং দেশটির প্রধান জনগোষ্ঠী। আরও আছে ক্রেয়োল, যারা আফ্রিকান কিংবা আফ্রিকান-ইউরোপীয় মিশ্র জাতি এবং জনসংখ্যার ৩১%। অন্যান্য জাতিগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য, ইন্দোনেশীয়, কৃষ্ণাঙ্গ ম্যারুন, আদিবাসি আমেরিকান, চীনা এবং ইউরোপীয়।

আরো পড়ুনঃ সিঙ্গাপুরে হিন্দু ধর্মের এতো শক্তিশালী অবস্থানের প্রকৃত কারণ কী!

সুরিনামের প্রধান ধর্ম খ্রিস্টধর্ম। খ্রিস্টানদের বেশির ভাগই আফ্রিকান রোমান ক্যাথলিক, আর এশীয়দের প্রোটেস্ট্যান্টদের মধ্যে মোরাভীয় গির্জার অনুসারীদের সংখ্যা বেশি।

হিন্দু ধর্ম সুরিনামের ২য় বৃহত্তম ধর্ম। সুরিনামের বর্তমান হিন্দু জনসংখ্যা ১,২০,৬২৩ যা মোট জনসংখ্যার ২২.৩%। এদের মধ্যে ১৮% সনাতনী হিন্দু, ৩.১% আর্য্য সমাজ এবং ১.২% হিন্দু ধর্মের অন্যান্য আচার অনুসরণ করে।

সুরিনামের হিন্দুদের বেশীরভাগই পূর্ব ভারতীয়। এছাড়া কিছু সংখ্যক ইন্দোনেশীয়, চিনা, ক্রেয়ল ও আদিবাসী লোকজন সনাতন হিন্দু ধর্ম অনুসরণ করে।

সুরিনামের হিন্দুদের বেশীরভাগই ভোজপুরীর উপভাষা শরণামী হিন্দুস্থানী ভাষায় কথা বলে। ব্রিটিশদের মতো ডাচ উপনিবেশক শাসকরা তাদের ভাষা কখনোই চাপিয়ে দেয়নি। ফলে সুরিনামের ভারতীয় বংশোদ্ভূত হিন্দুদের মধ্যে এখনো রয়ে গেছে তাদের মাতৃভাষা।

সুরিনাম হিন্দু
সুরিনামের হিন্দু ধর্মানুসারী

আরো পড়ুনঃ পাকিস্তানে হিন্দু ধর্মের মানুষেরা আদৌ কী ভালো আছে?

সুরিনামের হিন্দুদের প্রধান দুটি ধর্মীয় উৎসব হোলি এবং দীপাবলী। এ দুটি উৎসবে সুরিনামে পাবলিক হলি ডে। হিন্দু ছাড়াও দেশটির অন্যান্য ধর্মানুসারী লোকজনও এই দুটি উৎসবে ব্যাপকভাবে অংশগ্রহণ করে।

সুরিনামের রাজধানী প্যারামারিবো-তে অবস্থিত আর্য দিবাকর মন্দির সুরিনামের সবচেয়ে বড় হিন্দু মন্দির। আর্য দিবাকর নামক হিন্দু সংগঠন ২০০১ সালে এই মন্দিরটি প্রতিষ্ঠা করে। এই মন্দিরটি সুরিনামের অন্যতম প্রধান পর্যটন আকর্ষণ।

স্বামী দয়ানন্দ সরস্বতী কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত আর্য সমাজ হিন্দু ধর্মেরই একটি রূপ। ভারত থেকে নির্বাসিত মেহতা জায়মিনির উদ্যেগে ১৯২৯ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর আর্য দিবাকর নামের এই সংগঠনটি প্রতিষ্ঠিত হয়।

সুরিনামে হিন্দু ধর্ম -তে ইসকনের বেশ প্রভাব রয়েছে। ১৯৮০ এর দশকে ইসকনের মাধ্যমে সুরিনামে হরেকৃষ্ণ আন্দোলনের বিস্তার ঘটে। প্রায় দুই দশক আগে সুরিনামের ২য় বৃহত্তম শহর নিউ নিকেরিতে ইসকন কেন্দ্র প্রতিষ্ঠিত হয়। সুরিনামের রাজধানী প্যারামারিবো-তে হরেকৃষ্ণ মন্দির নামে ইসকনের একটি বড় মন্দির রয়েছে।

আরো পড়ুনঃ আমেরিকায় হিন্দু ধর্মের এতো শক্তিশালী অবস্থানের প্রকৃত কারণ কী?

সুরিনামের অন্যান্য উল্লেখযোগ্য মন্দিরগুলো হচ্ছে, ব্রহ্মঋষি মন্দির, শ্রীকৃষ্ণ মন্দির, শ্রী সত্যনারায়ণ মন্দির, শ্রী রাম মন্দির, শ্রী গণেশ মন্দির, শ্রী হনুমান মন্দির, শ্রী বিষ্ণু মন্দির, শ্রী শিব মন্দির, ত্রিলোকেশ্বর মন্দির প্রভৃতি।

সুরিনামের চতুর্থ প্রেসিডেন্ট ছিলেন একজন হিন্দু। তাঁর নাম ছিল রামসেবক শংকর। তিনি ১৯৮৮ থেকে ১৯৯০ সাল পর্যন্ত সুরিনামের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে সুরিনামের সরকারী-বেসরকারী বিভিন্ন উচ্চ পদে হিন্দুরা চাকরী করছে। সুরিনামে হিন্দু ধর্ম।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
error: Content is protected !!